Home » » বিরামপুরে খেলনা পিস্তল-চাকু নিয়ে ফেন্সিডিল খেতে এসে আটক-২

বিরামপুরে খেলনা পিস্তল-চাকু নিয়ে ফেন্সিডিল খেতে এসে আটক-২

চিলাহাটি ওয়েব ডটকম : 26 June, 2021 | 11:29:00 PM

মিজানুর রহমান মিজান, বিরামপুর প্রতিনিধি,চিলাহাটি ওয়েব : দিনাজপুর জেলার বিরামপুরে খেলনা পিস্তল, চাকু নিয়ে ফেন্সিডিল খেতে এসে বিরামপুর থানা পুলিশের হাতে দুুই যুবক আটক হয়েছে। পুলিশ তাঁদের কাছ থেকে দুটি খেলনা পিস্তল, একটি টিপ চাকু উদ্ধার করেছে। 
তাঁদের দেখানো জায়গা থেকে ৯ বোতল ফেন্সিডিল এবং এক ব্যাগ খালি বোতল উদ্ধার করেছে পুলিশ। শনিবার (২৬ জুন) দুপুরে বিরামপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সুমন কুমার মহন্ত ও অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) মোঃ মতিয়ার রহমানের নেতৃত্বে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে এসআই নুরুল হক ও এসআই মোস্তাফিজার রহমানের সর্ঙ্গীয় ফোর্স কাটলা ইউনিয়নের হরিহরপুর এলাকায় ওঁৎ পেতে থাকেন। এসময় তাঁরা সীমান্ত এলাকা থেকে ফেন্সিডিল নিয়ে অটো যোগে বিরামপুর আসার পথে উপজেলার ২নং কাটলা ইউনিয়নের হরিহরপুর এলাকা থেকে তাঁদের আটক করে। আটকের পর পুলিশ তাঁদের কাছ থেকে দুটি খেলনা পিস্তল, একটি টিপ চাকু ও ৩টি ব্যবহৃত মোবাইল ফোন উদ্ধার করেছে। তাঁদের দেখানো জায়গা থেকে পুলিশ ভারতীয় আমদানী নিষিদ্ধ ৯ বোতল ফেন্সিডিল ও এক ব্যাগ খালি ফেন্সিডিলের বোতল উদ্ধার করেছে। 
আটককৃতরা হলেন, রংপুর কোতয়ালী থানার মুন্সিপাড়া এলাকার ফজলুল হকের ছেলে নাইমুল হক (২৮) এবং নীলফামারী জেলার সৈয়দপুর উপজেলার পুরাতন বাবুপাড়া এলাকার ডা: শেখ নবাব আলীর ছেলে শেখ সাদাব বাবু (২৮)। বিরামপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) মোঃ মতিয়ার রহমান আটকের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তাঁদের আটক করা হয়। আটককৃতদের বিরুদ্ধে বিরামপুর থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলার প্রস্তুতি চলছে। বিরামপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সুমন কুমার মহন্ত বলেন, ফেন্সিডিল খাওয়ার অভিযোগে দুই যুবককে আটক করা হয়েছে। তাঁদের কাছ থেকে দুটি খেলনা পিস্তল, একটি চাকু, ৩টি ব্যবহৃত মোবাইল ফোন ও ঘটনাস্থল থেকে কিছু ফেনসিডিল উদ্ধার করা হয়েছে। তিনি আরো বলেন, মাদক ব্যবসায়ীরা দেশ জাতির শত্রুুু। এদের কোন ক্রমেই ছাড় দেওয়া হবে না। অবৈধ মাদকদ্রব্য নির্মূলে করা পুলিশের একার পক্ষে সম্ভব নয়। পুলিশকে তথ‍্য দিয়ে সহযোগিতার করুন। মাদকদ্রব্য নির্মূলে সকলের সহযোগিতা একান্ত ভাবে কাম্য। তথ্য দাতার নাম ও পরিচয় গোপন রাখা হবে। অবৈধ মাদকদ্রব্য নির্মূলে থানা পুলিশের নিয়মিত বিশেষ অভিযান অব‍্যাহত থাকবে।