Home » » পার্বতীপুরে বস্তাবন্দি অবস্থায় মাদরাসা ছাত্র উদ্ধার

পার্বতীপুরে বস্তাবন্দি অবস্থায় মাদরাসা ছাত্র উদ্ধার

চিলাহাটি ওয়েব ডটকম : 28 August, 2019 | 10:38:00 PM

বদরুদ্দোজা বুলু, পার্বতীপুর প্রতিনিধি,চিলাহাটি ওয়েব : দিনাজপুরের পার্বতীপুরে লালচাঁন বাদশা (১৪) নামে এক মাদরাসা ছাত্রকে হাত-পা বাধা, বস্তা বন্দি ও অচেতনা অবস্থায় উদ্ধার করেছে স্থানীয়রা। বুধবার সকাল সাড়ে ১১টায় উপজেলার পলাশবাড়ী ইউনিয়নের দরগাপাড়া ফাজিল মাদ্রসার পূর্বপাশের জঙ্গল থেকে তাকে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। সে ওই মাদ্রাসার ৮ম শ্রেণির ছাত্র। ২য় ঘন্টার ক্লাস চলাকালে সে কাউকে না জানিয়ে মাদরাসার বাইরে চলে যায়। এর কিছু পরে মাদ্রাসার পাশের বাড়ীর জোসনা বেগম নামের এক মহিলা তার গোঙ্গানীর শব্দ শুনে চিৎকার করলে স্থানীয়রা এসে তাকে উদ্ধার করে। পরে অচেতন অবস্থায় তাকে পার্বতীপুর উপজেরা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি কর হয়। মাদ্রাসা শিক্ষকের সহায়তায় তাকে দ্রুত পার্বতীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপে¬ক্স হাসপাতালে ভর্তি করা হয় বলে জানান মাদরাসা কর্তৃপক্ষ। বাদশার বাবা এরশাদনগর মহল¬ার হেলাল উদ্দীন ও মা রোবিয়া বেগম জানান, গত সপ্তাহের রোববার রাতে লালচান প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে ঘর থেকে বের হলে আর ঘরে ফেরেনি। ঘন্টাখানেক পর একই ভাবে হাত পা বাধা অবস্থায় তাকে উদ্ধার করা হয়। এসময় তার পাশে একটি ইঞ্জিকশনের সিরিঞ্জ পাওয়া যায় বলেও জানান তিনি। কে বা কারা এ ঘটনায় জড়িত থাকতে পারে তার কোন কুল কিনারা করতে পারেনি তার পরিবার। দরগাপাড়া ফাজিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ ইয়াছিন আলী জানান, ঘটনাটি রহস্যজনক তার বাবা-মা এব্যাপারে কোন ধারনা দিতে পারছেন না। মাদ্রাসার পূর্বপাশে ভবনের জানালা না থাকায় অনেক সময় শিক্ষার্থীরা ক্লাস ফাকি দিয়ে বাহিরে চলে যাওয়ার বিষয়টি স্বাীকার করেন তিনি। তবে দীর্ঘদিন অতিবাহিত হলেও জানালা না লাগানোয় শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তারহীনতার বিষয়ে কোন সদুত্তর দিতে পারেন নি তিনি।এ বিষয়ে পার্বতীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাঃ দয়াল চন্দ্র বলেন, প্রাথমিক ভাবে অনুমান করা হচ্ছে সে প্রচন্ড ভয় পেয়েছে। তবে গুরুতর কোন সমস্যা না থাকায় তাকে ভর্তি করে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। পার্বতীপুর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো: মোখলেছুর রহমান বলেন, মাদ্রাসা ছাত্রকে বস্তাবন্দি অবস্থায় উদ্ধারের ঘটনায় থানায় এখন পর্যন্ত কোন অভিযোগ দেয়া হয়নি।