Home » » পলাশবাড়ীতে ৪ ছেলের বিরুদ্ধে বৃদ্ধ বাবা-মা থানায় অভিযোগ

পলাশবাড়ীতে ৪ ছেলের বিরুদ্ধে বৃদ্ধ বাবা-মা থানায় অভিযোগ

চিলাহাটি ওয়েব ডটকম : 31 May, 2019 | 11:37:00 PM

ছাদেকুল ইসলাম রুবেল,গাইবান্ধা প্রতিনিধি,চিলাহাটি ্ওয়েব : গাইবান্ধার পলাশবাড়ীতে বৃদ্ধা বাবা-মার ওপর নির্যাতন, প্রতারণা করে জমি লিখে নেয়া ও প্রাণনাশের হুমকির অভিযোগ উঠেছে চার ছেলের বিরুদ্ধে। জীবন বাঁচাতে বাধ্য হয়ে অসহায় বাবা বাদি হয়ে চার ছেলের বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন। পলাশবাড়ী থানায় আবদুস সামাদ, মিজানুর রহমান, আজিজার রহমান ও লেবু মিয়াসহ চার ছেলেকে আসামি করে লিখিত অভিযোগ করেন বৃদ্ধ বাবা আলহাজ জয়নাল আবেদিন। লিখিত অভিযোগটি আমলে নিয়ে নির্যাতিত বৃদ্ধ বাবা-মার পাশে থাকাসহ তদন্ত করে আইনী ব্যবস্থা নেয়ার আশ্বাস দিয়েছে পুলিশ। ঘটনাটি গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলার হিজলগাড়ী গ্রামের। ওই গ্রামের মৃত্যু কিশমত উল্লাহ আকন্দের ছেলে আলহাজ জয়নাল আবেদিন। স্থানীয়রা জানায়, জয়নাল আবেদিনের চার ছেলে ও চার মেয়ে রয়েছে। তাদের মধ্যে দুই ছেলে নিজ এলাকা ব্যবসা আর দুই ছেলে দীর্ঘদিন বিদেশ ছিলেন। পেশায় ব্যবসায়ী জয়নাল আবেদিন বাড়ির পাশেই ইট ভাটার ব্যবসা করতেন। জয়নাল আবেদিনের অভিযোগ, ২০০৭ সালে হজ্বে যাওয়ার সময় পার্সপোর্ট আর ভিসার কথা বলে টিপ সহি নিঢ কৌশলে সাড়ে ১৪ বিঘা জমি লিখে নেয় চার ছেলে। প্রতারণা করে জমি লিখে নেয়ার ঘটনায় আদালতে মামলা করেন তিনি। মামলার পর যোগসাজসি জাল দলিলের প্রমাণ মিললে আদালত তার পক্ষে ডিগ্রী জারি করেন এবং সৃজনকৃত প্রমাণ মিললে আদালত তার পক্ষে ডিগ্রী জারি করেন এবং সৃজনকৃত প্রমাণ মিললে আদালত তার পক্ষে ডিগ্রী জারি করেন এবং সৃজনকৃত দলিল বাতিলের ঘোষণাসহ বিবাদীদের নোটিশ দেয় আদালত। ‘জীবনের শেষ বয়সে এসেও ছেলেদের নির্যাতন সহ্য করতে হচ্ছে। বাধ্য হয়ে প্রতিকার চেয় চার ছেলের বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ করেন। এছাড়া ছেলেদের প্রাণনাশের হুমকিতে দ্বিতীয় স্ত্রীকে চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন তিনি’। বিদেশ ফেরত ও ব্যবসায়ী ছেলেদের সঙ্গে বৃদ্ধ বাবার দ্বন্ধ ও মামলা-মোকদ্দমার ঘটনায় হতবাগ প্রতিবেশিরা। ঘটনার সুষ্ঠ সমাধানের দাবি জানিয়েছেন তারা। আর এমন ঘটনাটিকে অমানবিক বলছেন সচেতন মানুষরা। তবে প্রতারণা করে জমি লিখে নেয়ার অভিযোগ অস্বীকার করছেন অভিযুক্ত ছেলেরা। নির্যাতন আর হুমকির অভিযোগও মিথ্যা বলে দাবি করছেন তারা। ছোট ছেলে রানু মিয়া বলেন, ‘তার বাবা হজ্বে যাওয়ার আগে ইচ্ছে করে চার ছেলের নামে জমি লিখে দেন। সেই জমি দখলে নিয়ে চাষাবাদ করছেন তারা। কিন্তু এখন বাবা জমি দেয়নি বলে অস্বীকার করে মামলা করেন। বর্তমানে মামলা আদালতে বিচারাধীন। এছাড়া তাকে নির্যাতন ও হুমকি দেয়ার অভিযোগও মিথ্যা দাবি করেন। এ বিষয়ে পলাশবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাসুদুর রহমান বলেন, ‘আইনী আশ্রয় নেয়া বৃদ্ধা বাবার লিখিত অভিযোগটি আমলে নিয়ে তদন্ত করা হচ্ছে। তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। এছাড়া বৃদ্ধ বাবা-মায়ের নিরাপত্তায় কোন ব্যাঘাত না ঘটে সেজন্য তাদের খোঁজখবরসহ পাশে থাকার আশ্বাস দিয়েছেন তিনি। শুধু আশ্বাসই নয়, নিরাপত্তাসহ শেষ সম্বল রক্ষা ও জীবনের বাকি সময়টুকু যেন নিজ বাড়িতেই থাকতে পারেন, এমনটাই দাবি, হতভাগা বাবা-মার।