Home » » কিশোরগঞ্জে পুলিশ সদস্যের জমি জবর দখল করেছে বিজিবি সদস্য

কিশোরগঞ্জে পুলিশ সদস্যের জমি জবর দখল করেছে বিজিবি সদস্য

চিলাহাটি ওয়েব ডটকম : 18 August, 2018 | 12:36:00 AM

মিজানুর রহমান, কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি,চিলাহাটি ওয়েব : নীলফামারীর কিশোরগঞ্জ উপজেলার সদর ইউনিয়নের উত্তর পুশনা ডাঙ্গাপাড়া গ্রামে গত কাল বৃহস্পতিবার পুলিশ সদস্যের জমি জবর দখল করেছে বিজিবি সদস্য। এসময় পুলিশ সদস্যের লাগানো আমগাছ ও কলাবাগান কেটে ফেলেছে বিজিবি সদস্য। এছাড়াও কবরস্থান থেকে লাশতুলে ছুবে ফেলে দেয়ার হুমকি দিয়েছে বিজিবি সদস্য। এঘটনায় দুপক্ষের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে। সরে জমিন গিয়ে জানা গেছে, পুশনা গ্রামে মরহুম নুর আলমের পুত্র পুলিশ সদস্য বজলুর রশিদ ৫ শতাংশ জমি কবলা দলিলের মাধ্যমে ক্রয় করে দীঘ দিন থেকে ভোগ দখল করে আসছে। সে ওই জমির সিমানা দিয়ে আম গাছ ও কলাবাগান লাগায়। কিন্তু হঠাৎ করে গত কাল সকাল ৯ টার দিকে বিজিবি সদস্য কাশেম আলী পুলিশ সদস্যের আম গাছ ও কলাবাগান কেটে ফেলে এবং বজলুর রশিদের বাড়ীতে গিয়ে তার বাবার লাশ কবর থেকে তুলে ছুড়ে ফেলার হুমাক দিয়ে আসে। এঘটনায় দুপক্ষের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে। পুলিশ সদস্য বজলুর রশিদ বলেন আমি ওই জমি প্রায় ৫ বছর থেকে ভোগদখল করে আসছি। বিজিবি সদস্যই আমিন এনে জমি মেপে সিমানা নির্ধারন করে দিয়েছে। তার নির্ধারন করা সিমানা মেনে নিয়ে আম গাছ ও কলাবাগান লাগিয়ে ছিলাম। কিন্তু সে কি কারনে এমন পশুত্বের আচরন করেছে আমি জানিনা। বিজিবি সদস্য কাশেম আলী সিমানা নির্ধাবনের বিষয় স্বীকার বলেন পুলিশ সদস্য বজলুর রশিদ জমির সিমানা ঘেষে টয়লেট নির্মান করেছে। সেই টয়লেটের ময়লা আমার পুকুরে পরে পানি দুষিত করছে। পুকুরে আমি মাছ চাষ করতে পারছিনা। এ কারনে আমি আম ও কলাবাগান কেটে তার বাবার কবরও সরাতে বলেছি। কিশোরগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জা হারুন অর রশিদ বলেন এ ঘটনায় কেউ অভিযোগ দেয়নি। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থ্য নেয়া হবে।