Home » » রাজধানীতে গণপরিবহন উধাও : ভোগান্তিতে মানুষ

রাজধানীতে গণপরিবহন উধাও : ভোগান্তিতে মানুষ

চিলাহাটি ওয়েব ডটকম : 02 August, 2018 | 1:38:00 PM

চিলাহাটি ওয়েব,ঢাকা অফিস : কয়েকদিনের টানা বিক্ষোভের মুখে বৃহস্পতিবার দেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণার পর সব ধরনের ক্লাস ও পরীক্ষা স্থগিত করেছে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো। তবে নিরাপত্তার অজুহাতে অঘোষিত ধর্মঘটে নেমেছে পরিবহন শ্রমিক-মালিকরা। এ কারণে উধাও হয়ে গেছে রাজধানীর গণপরিবহন। চরম দুর্ভোগে পড়েছে সাধারণ মানুষ। আজ বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই রাজধানীর গাবতলী, মহাখালীসহ আন্তঃজেলা টার্মিনাল থেকে বাস চলাচল বন্ধ রাখে শ্রমিক-মালিকরা। তাদের দাবি নিরাপত্তার অভাবেই তারা বাস চলাচল বন্ধ রেখেছেন। এ কারণে রাজধানী থেকে বেশির এলাকায় দূরপাল্লার কোনো বাস ছেড়ে যায়নি। এদিকে মিরপুর-মতিঝিল, মোহাম্মদপুর-সায়েদাবাদ, উত্তরা-মতিঝিল রুটে চলাচলকারী নিয়মিত বাসগুলো সড়কে প্রায় দেখাই যায়নি। সকাল সাড়ে ৮টার দিকে দেখা যায়, রোকেয়া সরণি, প্রগতি সরণি, এয়ারপোর্ট রোড, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ প্রায় ফাঁকা। কয়েকটি বাস চলাচল করছে, যা প্রয়োজনের তুলনায় সংখ্যায় অত্যন্ত নগণ্য। সকালে মিরপুর যাত্রাবাড়ী দনিয়া থেকে উত্তরা পর্যন্ত বিভিন্ন সড়কে দু-একটি গাড়ি চলছে। সেগুলোতে অনেক ধস্তাধস্তি করে অফিসগামীদের উঠতে হচ্ছে চরম ভোগান্তির মধ্যে। তবে স্কুল-কলেজ বন্ধ থাকায় সকালে সড়কে কোনো স্কুল-কলেজগামী শিক্ষার্থীদের দেখা যায়নি। মিরপুরের বাসিন্দা মাসুদ করিম জানান, তিনি মিরপুর ১০ নম্বরে সকাল ৮টা থেকে অপেক্ষা করছেন বাসের জন্য। যাবেন গুলিস্তান। কিন্তু এক ঘণ্টা অপেক্ষার পরও বাসে উঠতে পারেনি।
শ্যামলী থেকে কারওয়ান বাজারগামী মানিক মিয়া জানান, সকাল ৯টার মধ্যে তাকে অফিসে পৌঁছাতে হয়। তিনি শ্যামলীতে বাসের রাস্তায় প্রায় এক ঘণ্টা দাঁড়িয়ে আছেন। কিন্তু কোনো বাস পাচ্ছেন না। এদিকে গণপরিবহন না থাকায় সিএনজি ও রিকশা ভাড়া কয়েকগুণ বেড়ে গেছে। প্রসঙ্গত, গত রবিবার জাবালে নূর পরিবহনের একটি বাসচাপায় শহীদ রমিজ উদ্দিন ক্যান্টনমেন্ট কলেজের দুই ছাত্রছাত্রীর মৃত্যুর পর থেকে শিক্ষার্থীরা আন্দোলনে নামে। বুধবার চতুর্থ দিনের মাথায় শিক্ষার্থীদের আন্দোলন ঢাকার পর চট্টগ্রাম, বরিশালসহ দেশের বিভিন্ন শহরে ছড়িয়ে পড়েছে। এদিকে সড়ক দুর্ঘটনায় দুই শিক্ষার্থীর মৃত্যুর ঘটনায় উদ্ভূত পরিস্থিতিতে আজ সারা দেশের সব ধরনের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।
বুধবার বিকালে এ তথ্য সাংবাদিকদের জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। পাশাপাশি এ সিদ্ধান্তের বিষয়টি নিশ্চিত করেছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ও। এ অবস্থার মধ্যেই সচিবালয়ে নৌপরিবহনমন্ত্রী, তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু, এলজিআরডি প্রতিমন্ত্রী মসিউর রহমান রাঙ্গা, আইজিপি, ডিএমপি কমিশনার, পরিবহন মালিক ও শ্রমিক প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠক করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল। পরে তিনি সড়কে শৃঙ্খলা ফেরাতে সব ধরনের পদক্ষেপ নেয়ার আশ্বাস দিয়ে শিক্ষার্থীদের ক্লাসে ফিরে যাওয়ার আহ্বান জানান।
ঘাতক বাস জাবালে নূর পরিবহনের মালিক মো. শাহাদাৎ হোসেনকে গ্রেফতার করে র‌্যাব। এ ছাড়া ঘাতক বাসের চালক মাসুম বিল্লাহকে ৭ দিনের রিমান্ডে নিয়েছে পুলিশ।